নিয়মিত আচার খাওয়া কি স্বাস্থ্যকর? জেনে নিন

ভারতীয়দের রান্নাঘরের অন্যতম বিখ্যাত উপকরণ হল আচার। খাবারের পাতে এই মশলাদার সঙ্গী ভাত রুটি যেকোনো ধরণের খাবারের সঙ্গেই মানানসই। পরটা, দই ভাত, পুরি এবং যেকোনো খাবারের সঙ্গেই আচার দারুণ মানানসই। অনেক মানুষ আবার শুধু শুধুই আচার খেতে খুব ভালবাসে। গাজর, আম, লেবু, লঙ্কা এমন কী মাছ এবং মাংসেরও আচার ভারতীয়রা তৈরি করতে পারে। যে খাবারে মশলা নেই, তা খাবার কী মানে? অনেক মানুষেরই সকাল, দুপুর, রাত সমস্ত খাবারের সঙ্গেই আচার খাওয়ার অভ্যাস থাকে।

কিন্তু নিয়মিত আচার খাওয়া কী আমাদের শরীরের পক্ষে উপকারী? অনেকেই যুক্তি দেবেন অনেক সবজি দিয়ে তৈরি হওয়ায় আচার খুবই স্বাস্থ্যকর। তাছাড়াও লবণ দিয়ে সংরক্ষণ করার কারণে ভারতীয় আচারে প্রচুর সোডিয়াম থাকে। এছাড়াও আচারে প্রচুর পরিমাণে তেল থাকে, যা ফানগাসের সম্ভাবনা দূর করে আচার সংরক্ষণ করার জন্য ব্যবহার করা হয়। আমরা সাধারণভাবেই জানি অতিরিক্ত লবণ এবং তেল সমৃদ্ধ খাদ্য আমাদের হার্টের পক্ষে ক্ষতিকর। এর থেকে আমাদের দেহের কোলেস্টেরল বেড়ে আমাদের শরীরের অনেক ক্ষতি হয়। কারণ তেলে প্রচুর পরিমাণে ট্রান্স ফ্যাট থাকে, যা আমাদের শরীরের পক্ষে খুবই ক্ষতিকর।

aam ka achaar or mango pickle

ভারতীয় আচারে প্রচুর পরিমাণে তেল, মশলা এবং লবণ থাকে 
ট্রান্স ফ্যাট আমাদের দেহে লো ডেনসিটি লাইপোপ্রোটিনের বৃদ্ধির জন্য দায়ী। যার ফলে আমাদের হার্টের বিভিন্ন সমস্যা, স্থূলতা এবং অন্যান্য সমস্যা দেখা দেয়। আচারে অতিরিক্ত লবণের উপস্থিতির ফলে আমাদের দেহে জলের অসাম্য, শরীর ফুলে যাওয়া, উচ্চ রক্তচাপ এবং আরও অসংখ্য সমস্যা দেখা দেয়। ম্যাক্রোবায়োটিক পুষ্টিবিদ এবং হেলথ প্র্যাক্টিশনার শিল্পা আরোরা জানান, “আচারে উপস্থিত মশলা আমাদের পাচনতন্ত্রের গোলযোগ সৃষ্টি করতে পারে। তাছাড়া তেলে উপস্থিত ট্রান্স ফ্যাট আমাদের লিভারের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর।“ তবে আচার প্রেমীদের এর জন্য মন খারাপের প্রয়োজন নেই। এই সমস্ত শারীরিক সমস্যা সৃষ্টি না করেও আচার খাওয়া সম্ভব।

শিল্পা আরোরা স্বাস্থ্যকর আচার খাওয়ার বিভিন্ন উপায় আমাদের জানিয়েছেন, “বিভিন্ন সবজিকে ট্র্যাডিশনাল উপায়ে ফারমেন্ট করে সারা বছর ধরে আচার হিসাবে খাওয়া হয়। সংরক্ষণের জন্য তেল, মশলা, লবণ নির্দিষ্ট পরিমাণে দেওয়া হয়। ফারমেন্টেশনের ফলে উপকারী ব্যাকটেরিয়া তৈরি হয় যা আমাদের শরীরকে রিবুট করতে সাহায্য করে।“ অত্যাধিক আচার খাওয়ার ব্যপারে সাবধান করে শিল্পা আরোরা জানিয়েছেন, “আচারটা সাবধানে তৈরি করতে হবে এবং প্রস্তুতির সময় বিভিন্ন উপকরণ অত্যন্ত সতর্ক ভাবে বেছে নিতে হবে।“ যদিও এই আপনার সাধারণ আচারের তুলনায় স্বাস্থ্যকর এই ভার্সনের স্বাদ আলাদাই হবে, কিন্তু আপনি এই আচার শরীরের চিন্তা না করেই আরও নিশ্চিন্তে উপভোগ করতে পারবেন।

Highlights
  • ভারতীয় খাবারে আচার খুবই গুরুত্
  • অনেকেই সব খাবারের সঙ্গেই আচার খেতে পছন্দ করে
  • আচারে সোডিয়াম এবং ট্রান্স ফ্যাট থাকে, উভয়ই আমাদের শরীরের পক্ষে ক্ষতিকর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *