কীভাবে কাটছে অপু-আব্রামের ভালোবাসা দিবস?


মায়ের সঙ্গে আব্রাম খান জয়। ছবিটি অপু বিশ্বাসের ফেসবুক থেকে সংগৃহীত
 ভালোবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে একে-অপরকে নানা রকম শুভেচ্ছাসূচক কার্ড, ফুল, চকলেট বা উপহারসামগ্রী বিনিময় করছেন। আজকের এ বিশেষ দিনটিকে নিজেদের মতো করে উদযাপন করছেন ঢাকাই ছবির নায়িকা অপু বিশ্বাস ও তার পুত্র আব্রাম খান জয়। আর সকালেই আব্রাম তার বাবা শাকিব খানকে ফোন করে শুভেচ্ছা জানিয়েছে।
১৪ ফেব্রুয়ারি, বৃহস্পতিবার বেশকিছু ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে শেয়ার করেছেন অপু বিশ্বাস। আর সেখানে তার ভক্ত-শুভাকাঙ্খীরাও বিশেষ এ দিনে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

স্কুলে যাওয়ার আগে মায়ের সঙ্গে এভাবেই ক্যামেরাবন্দী হয় জয়।

দুপুরে অপু বিশ্বাস প্রিয়.কমকে জানান, আজ পুত্র আব্রাম খান জয়ের স্কুলে ভালোবাসা দিবস উপলক্ষে বিশেষ আয়োজন ছিল। বরাবরের মতো বিশেষ দিনগুলোতে তারা দুজন একই ধরনের পোশাক পরেন। আজও তার ব্যতিক্রম হয়নি। আগে থেকেই পরিকল্পনা ছিল, আজ স্কুলে যাওয়ার সময় প্রত্যেক শিশুর মা ভিন্ন ভিন্ন ধরনের গিফট নিয়ে যাবেন। এরপর দিনটি উদযাপন করবেন তারা। তাই এ আয়োজনকে ঘিরেই আজকের সকালটা কেটেছে অপুর।

গত বছরের ১২ নভেম্বর রাজধানীর বারিধারায় আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ঢাকা (এআইএসডি) স্কুলে জয়কে ভর্তির জন্য গিয়েছিলেন শাকিব ও অপু। কিন্তু বয়সের ক্ষেত্রে ঝামেলা তৈরি হয়। বয়স বাধা হয়ে দাঁড়ায়। পরে স্কুল কর্তৃপক্ষ জয়কে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার ‘ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ঢাকা’য় প্রি-স্কুল শাখায় ভর্তি করার পরামর্শ দেয়।

জয় আজ তার স্কুলের বন্ধুদের জন্য এ কেকটি নিয়ে যায়।

আব্রাম স্কুলে যাওয়ার আগে ভিডিও কলে বাবা শাকিব খানকে বিশেষ দিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছে বলে জানান অপু। তিনি বলেন, ‘স্কুলে যাওয়ার আগে জয় তার বাবাকে ভিডিও কলে হ্যাপি ভ্যালেন্টাইনস বলেছে। আর তার স্কুলের বন্ধুদের জন্য যে অনেকগুলো গিফট কিনেছে, সেগুলোও তার বাবাকে দেখিয়েছে।’

অপু তার নিজ বাসায়ও এ দিনটি উদযাপনের জন্য আলাদা করে আয়োজন করেছেন। অপু বলেন, ‘দিনটিকে ঘিরে বাসায় আজ বিশেষ খাবারের আয়োজন করা হয়েছে। আমার পরিবারের সদস্যদের নিয়েই দিনটি কাটাচ্ছি। জয়কে স্কুল থেকে নিয়ে এসে যমুনা ফিউচার ওয়ার্ল্ডে যাব। জয় ওখানে গেলে অনেক খুশি হয়। জায়গাটার প্রতি ওর অনেক ভালো লাগা আছে।’

চলচ্চিত্রে কাজ করতে গিয়েই অপুর সঙ্গে পরিণয় হয় শাকিব খানের। বহু রোমান্টিক ছবির এ জুটি প্রেম-ভালোবাসার অধ্যায় পার করে একসময় বিয়েও করেন। সংসার জীবনের কয়েক বছর পার হওয়ার পর সম্পর্কে ফাটল ধরা শুরু হয়। যদিও তারা সন্তানের যেকোনো বিষয়ে একসঙ্গে হয়ে যান।

মায়ের সঙ্গে এভাবেই দুষ্টুমির ছলে ক্যামেরায় ধরা দিলো জয়।

শাকিব খান আপনাকে বিশেষ এ দিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কিনা, জানতে চাইলে অপু বিশ্বাস বলেন, ‘আমি মনে করি, আমি বলতেও জয়, শাকিব বলতেও জয়। আমাদের প্রধান ভালোবাসাটা জয়কে ঘিরে।’

ভালোবাসার সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘ভালোবাসা মানে আমার কাছে দুইটা শব্দ। একটা হচ্ছে মায়া, আরেকটি বন্ধুত্ব। এ দুটো বিষয় মানুষের মধ্যে থাকা ভীষণ জরুরি। মায়াটা কোথা থেকে আসে, তা আমি জানি না। তবে তা উদযাপনের জন্য বিশেষ কোনো দিনের দরকার বলে আমি মনে করি না।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *